July 10, 2020

Banner Here
নিরব বিবেকে, জাগ্রত মানবতায় পরিচয় মিললো আমরা মানুষ- মিঠুন কুমার কর্মকার

ঝিনাইদহের চোখঃ

দাউ দাউ করে আগুনের লেলিহান শিখায় পুড়ছে বিবেক। মানবতা এখানে জাগ্রত; তবে কিছু মনুষ্য বিবেক নিস্তব্দ, নিরব, স্বার্থপর। ভাবতে কষ্ট হয়, ভিষণ কষ্ট এবং ব্যথিত ব্যাকুল থম থমে গা শিহরণে অস্তিত্বে মজ্জা মস্তিষ্ক শান্ত নিরবে পিছুপা হয় যখন কোনো ভালো কাজের সামিল থেকে তখন মনুষ্য জীব হিসেবে নিজেকে অবাক লাগে। সত্যিই ভিষণ কষ্ট হয় বিবেককে যখন গলা টিপে হত্যা করে মানবতাকে লুন্ঠিত করার চেষ্টা করা হয়।

ভাবলে অবাক হয় যখন নিবীড় নিংড়ানো ভালোবাসা উপেক্ষিত করে কেউ মৃত্যুর স্বাদ গ্রহণের সাথে সাথে তার দেহের অন্ত্যাষ্ট্যক্রিয়ায় বা দাফনে নিজের অতি আপন স্বজনও নিষ্ফলক অবিবেচিত নির্বিকার স্বার্থনেশী হয়ে ওঠে।

শত ধিক এই আপনজনের মানবকুলকে যারা জীবিত থাকতেই শুধু স্বার্থনেশী ভালোবাসায় মন জয় করার নাট্যমঞ্চের নিখুত অভিনয় করে নিজ পাওনা শতভাগ বুঝে নেওয়ার চেষ্টা করেছে। কিন্তু যে মানুষটি সারা জীবন তিল তিল করে উপার্জিত কষ্টের সব অর্থ তুলে দিয়েছে নিজ আপনজনদেরকে একটু হাসি ফোটাতে। কখনও একটুকুও কার্পন্ন করেনি উজাড় করা ভালোবাসা বিলিয়ে দিতে। আজ তারাই কিনা করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া মরদেহের শেষ কর্ম করতে পিছুপা হচ্ছে।

সত্যিই নির্বিবাক আমাদের মনুষ্যহীন বিবেক, সত্যিই নির্মম বেদনাদায়ক, এযেনো নিস্তব্দ বুকফাটা আর্তনাদের ভারাক্রান্ত পরিবেশ। যা মেনে নেওয়া খুবিই কষ্টদায়ক একজন বিবেকবান মনুষ্য জীব হিসেবে।

তবে মুদ্রার এপিট এবং ওপিঠও আছে। যেখানে মানুষ স্বার্থনেশী সেখানেই কিছু মানুষ উদার, মানবতা প্রেমী। ঠিক এমনি একটি উদার দৃষ্টান্ত ও মানবতার ইতিহাস গড়ে উঠলো ফরিদপুরে।

যেখানে আমরা জাত সম্প্রদায়ে বিভেদে মেতে উঠি, মানুষ হয়ে মনুষ্যত্ব ভুলে যায়; ঠিক সেখানে এগিয়ে আসল এক ঝাঁক মানবতা প্রেমী পুলিশ ভাইয়েরা হিন্দু পরিবারের একজন করোনায় আক্রান্ত মৃত ব্যাক্তির শবদাহ করতে। যেখানে নিজ পরিবারের কেউ এগিয়ে আসেনি, এমনকি হিন্দু সমাজের স্বার্থনেশী একদল মানুষ বাঁধা গ্রস্থ করেছে শশ্মানে মৃত দেহের সৎকার্য করতে।

তবুও সব বাঁধাকে উপেক্ষিত করে মানবতা প্রেমী পুলিশ ভাইয়েরা বুঝিয়ে দিলো সবার উপরে মানুষ সত্য তাহার উপরে নয়।

বুঝিয়ে দিলো মাতৃগর্ভ থেকে যখন আমরা জন্ম গ্রহণ করেছি তখন আমাদের একটাই পরিচয় ছিল সেটি হলো আমরা মানুষ। আমাদের দেহের রক্ত লাল এবং সবার একই। আমাদের হাসি, কান্না একই। আমাদের খাদ্য গ্রহণ প্রণালি একই। জন্মের পর মৃত্যু একই। মাতৃ¯েœহ একই। সবার মাঝে প্রাণ একই ।

শুধু বিভেদ এবং মত পার্থক্য তৈরি হয়েছে আমাদের দ্বারায়। তৈরি হয়েছে হিংসা, বিদ্বেষ, অহংকার, পরনিন্দা, স্বার্থপরতা ইত্যাদি শুধু আমাদের মনুষ্যত্বহীন বিবেকের দ্বারা।

তবে ফরিদপুরে মানবতা প্রেমী পুলিশ ভাইদের দ্বারা যে উদার নীতি তৈরি হলো তা মানব হৃদয়ে ইতিহাস গড়ে উঠলো এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত। গড়ে উঠলো মনুষ্যত্ব, ভ্রাতৃত্ব, মানবতা। সব স্বার্থপরতাকে পুড়ে ছাই করে জেগে উঠলো বিবেক, পরিচয় মিললো আমরা মানুষ।

image_print

Theme.Com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


     আরও সংবাদ

Add